অন্যান্যভিডিওসেরা খবর

বড্ড বেশি পাকা! ৩ বছরের খুদের হাতে ৫ ফুটের সাপ, ভয়ানক দৃশ্য দেখে আঁতকে উঠলো নেটজনতা

সোশ্যাল মিডিয়ার দৌলতে নিত্যদিন কত ধরণের পোস্ট, ভিডিও ভাইরাল হয় তার ইয়ত্তা নেই। কখনও মজাদার তো কখনও দুঃখের, আবার কখনও বা সমাজসচেতন মূলক বার্তা। সোশ্যাল মিডিয়া খুললেই নিউজ ফিডে ভেসে ওঠে হাজারও ধরণের খবর। এমতাবস্থায় নেটপাড়ার পাতায় ভেসে ওঠে পশুপাখিদের কর্মকাণ্ডও।

সম্প্রতি এমনই একটা হাড়হিম করা ভিডিও ভেসে উঠেছে সোশ্যাল মিডিয়ার পাতায়। যা দেখে রীতিমত আতঙ্কিত হয়ে উঠেছে মানুষ। যেখানে সাপের নাম শুনলেই আতঙ্কে ঘাম ছুটে যায় অধিকাংশ মানুষের, সেখানে এক শিশু প্রায় ৫ ফুটের একটি সাপকে টেনে নিয়ে যাচ্ছে।

সাম্প্রতিক ভাইরাল এই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, ঘরের মধ্যে গল্পে মশগুল হয়ে আছে সবাই। এমন সময় একটি বছর তিনেকের শিশু টলমল পায়ে প্রবেশ করে ঘরে। এতদূর পর্যন্ত সব ঠিক থাকলেও মানুষের চোখ আটকে যায় খুদেটির হাতের দিকে। সেখানে ধরা প্রায় ৫ ফুট লম্বা একটি সাপ।

হ্যাঁ, ঠিকই পড়েছেন‌‌। নিজের চেয়ে প্রায় দ্বিগুণ আকারের এই সাপটির লেজ ধরে টানতে টানতে ঘরে প্রবেশ করে সে। ঘরের ভিতরে বসে থাকা মহিলাদের এক জন মুখ ঘুরিয়ে দরজার দিকে তাকাতেই চিৎকার করে ওঠেন। বাকিদের তখন আতঙ্কে দিশাহারা অবস্থা।

এমতাবস্থায় পরিবারের বাকি সদস্যরা ছুটে এলেও খুদেটি সাপটিকে ছাড়তে নারাজ। একজন বাচ্চাটিকে বাইরে টেনে নিয়ে এলেও সে সাপটিকে ছাড়তে রাজি নয়। এতোকিছুর মধ্যে সবচেয়ে আশ্চর্যজনক বিষয় হল, সাপটিকে বিরক্ত করা সত্ত্বেও আক্রমণাত্মক হয়ে ওঠেনি সেটি। উলটে তার ‘ছেড়ে দে মা কেঁদে বাঁচি’ অবস্থা যেন।

তবে ভিডিয়োটি ঠিক কোথাকার সেই বিষয়ে কোন স্পষ্ট তথ্য মেলেনি যদিও। পাশাপাশি সাপটি বিষাক্ত ছিল কি না তা-ও স্পষ্ট নয়। তবে ভিডিয়োটি ভাইরাল হতেই, শিউরে উঠেছেন অনেকে। পাশাপাশি প্রশ্ন তুলেছে শিশুটির পরিবার তথা মা-বাবার দায়িত্ববোধের উপরেও।

Related Articles

Back to top button