অন্যান্যভিডিওসেরা খবর

নিয়মকে বুড়ো আঙ্গুল! একটা বাইকে ৭ জন আরোহী, কারোর মাথায় নেই হেলমেট, রইল ভিডিও

আজকের ডিজিটাল যুগে বিনোদনের অন্যতম প্রধান জায়গা হলো সোশ্যাল মিডিয়া। বহু মানুষ নিজের প্রতিভার ভিডিও বানিয়ে পোস্ট করে থাকেন এখানে। আর সোশ্যাল মিডিয়ার দৌলতে সেই সব পোস্ট, ভিডিও আমাদের চোখের সামনে ভেসে ওঠে। সম্প্রতি এমনই এক ভিডিও দেখে চক্ষু চড়কগাছ নেটিজেনদের।

গত পরশু অর্থাৎ ৩০ আগস্ট IAS সুপ্রিয়া সাহা নিজের টুইটার হ্যান্ডেল থেকে এই ভিডিওটি শেয়ার করেছেন। ভিডিওটি প্রকাশ্যে আসা মাত্রই ঝড়ের গতিতে শেয়ার হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। এমনকি সুপ্রিয়া দেবীর পোস্টের কমেন্ট বক্সেও একে অপরকে ট্যাগ করছে মানুষজন।

শুধু তাই নয়, ভিডিওটি দেখে সুপ্রিয়া দেবী নিজেও কথাবলার ভাষা হারিয়ে ফেলেছেন। আর তাই ক্যাপশনে লিখেছেন, “স্পিচলেস”। ঠিক কী রয়েছে এই ভাইরাল ভিডিওতে। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে এক ব্যক্তি বাইকে উঠছেন। তার সঙ্গে দুই মহিলা ও চারজন কচিকাঁচা।

হ্যাঁ, ঠিকই পড়েছেন, একটা দু চাকার বাইকে মোট ৭ জন সওয়ারি। একবার দেখে নিজের চোখকে বিশ্বাস করাই কঠিন। ভিডিওটি দেখে তাজ্জব হয়ে গিয়েছেন নেটিজেনরা। ইতিমধ্যেই ৩.৫ মিলিয়ন মানুষ দেখেছে ভিডিওটি। রিটুইট আর লাইকেরও বন্যা। ‘যদি হয় সুজন, তেঁতুলপাতায় ন’জন’ এই প্রাচীন প্রবাদটির বাস্তব উদাহরণ যেন এটি।

তবে কিছু মানুষ এটি দেখে মজা পেলেও সমালোচনাও করেছে অনেকে। নেট নাগরিকদের বক্তব্য, একটা বাইকে ৭ জন মানুষ মানে কত বড়ো বিপদ আসতে পারে তার ঠিক নেই। কারো মাথায় হেলমেট অবদি নেই। এমতাবস্থায় কীভাবে কেউ এতোগুলো জীবনের ঝুঁকি নিতে পারে সেটা ভেবেই তাজ্জব সবাই।

কমেন্ট বক্সে জনৈক ব্যাক্তির বক্তব্য, ”দু’চাকার গাড়িতে ৭ জন সওয়ারি। যদি কোনও ভাবে চাকা স্লিপ করে যায়, বাচ্চাগুলোর কী হবে? বাইকটির চালককে অবিলম্বে গ্রেপ্তার করতে হবে। ওর লাইসেন্সও কেড়ে নিতে হবে।” অপর একজনের বক্তব্য, ”এটা মোটেই মজার ব্যাপার নয়। ঈশ্বর করুন ওঁদের কারও কোনও ক্ষতি না হোক।” সবে মিলিয়ে এইমুহুর্তে নেট নাগরিকদের অ্যাটেনশন কেড়ে নিয়েছে এই ভিডিওটি।

Related Articles

Back to top button