অন্যান্যসেরা খবর

মাংস ছাড়াই দুপুরের খাবারের লোভনীয় রান্না, রইল এঁচোড়ের কালিয়া তৈরির দুর্দান্ত রেসিপি

বাঙালি বলতে এককথায় ভোজনরসিক কথাটা প্রযোজ্য। সসময়ই নিত্যনতুন খাবারের খোঁজে থাকে বাঙালিরা। আর তাই নতুনত্ব রান্না পেলেই সেই খাবার খেতে পছন্দ করেন তারা। যদিও শুধু মাছ বা মাংস নয়, এগুলো ছাড়াও বিভিন্ন সবজি দিয়ে রান্না তৈরি করা যেতে পারে। ঠিক যেমন আজকের এই রেসিপি। এই দুর্দান্ত স্বাদের রেসিপির নাম হল ‘এঁচোড়ের কালিয়া রেসিপি’।

অনেকেই বলেন এঁচোড় যদি ঠিকভাবে রান্না করা যায় তাহলে সেটি মাংসকেও হার মানাতে পারে। আবার এই এঁচোড়ের মধ্যেই বেশকিছু ভিটামিন, ক্যালসিয়াম, পটাসিয়াম ইত্যাদি থাকে। যা আমাদের শরীরের জন্য ভীষণ উপকারী। তাই জিভের স্বাদের সঙ্গে পুষ্টিটাও বেশ জরুরি। তাহলে শিখে নেওয়া যাক, এই দুর্দান্ত রেসিপি।

উপকরণ- এঁচোড়, আলু

পেঁয়াজ বাটা, টমেটো বাটা, আদা বাটা, রসুন বাটা, কাঁচালঙ্কা বাটা

তেজপাতা, দারুচিনি, এলাচ, লবঙ্গ

হলুদ গুঁড়ো, লঙ্কা গুঁড়ো, জিরে গুঁড়ো, ধনে গুঁড়ো, গরম মশলা গুঁড়ো

পরিমাণ মত নুন, রান্নার জন্য তেল

পদ্ধতি –১) প্রথমে এঁচোড় এনে সেটাকে ভালো করে ধুয়ে ছোট ছোট টুকরো করে কেটে নিতে হবে। এরপর আবার পরিষ্কার করে ধুয়ে রাখতে হবে। ছোট ছোট করে কেটে নিতে হবে।

২) এবার একটা পাত্রে জল গরম করে তাতে প্রথমে এঁচোড় এবং তার বেশ কিছুক্ষণ পর আলু দিয়ে সেদ্ধ করতে হবে। এই সেদ্ধ করার সময় নুন, হলুদ দিয়ে দিতে হবে।

৩) যখন এঁচোড় এবং আলু সেদ্ধ হয়ে যাবে তখন জল ঝরিয়ে আলাদা করে নিতে হবে।

৪) এরপর কড়াইতে সরষের তেল গরম করে এরমধ্যে তেজপাতা, দারুচিনি, এলাচ, লবঙ্গ দিয়ে নাড়িয়ে নিতে হবে।

৫) তারপর কড়াইতে একে একে পেঁয়াজ বাটা, আদা বাটা, কাঁচা লঙ্কা বাটা, রসুন বাটা, টমেটো বাটা দিয়ে দিতে হবে। এরপর পরিমানমতো নুন, হলুদ গুঁড়ো, লঙ্কাগুঁড়ো, জিড়ে গুড়ো, ধনে গুঁড়ো ও গরম মশলা গুঁড়ো দিয়ে ভালো করে কষিয়ে নিতে হবে।

৬) এই কষানোটা ভালো করে হয়ে গেলে তখন এঁচোড় ও আলু দিয়ে মশলার সাথে ভাল করে মিশিয়ে নিতে হবে।

৭) এরপরে পরিমানমতো জল দিয়ে কড়াইতে ঢাকনা দিয়ে বন্ধ করে ১০-১৫ মিনিট ফুটিয়ে নিতে হবে। মধ্যে মাঝে মাঝে ঢাকনা খুলে নিতে হবে।

৮) এরপর উপরে গরম মশলা গুঁড়ো দিয়ে আরও দু-তিন মিনিট মতো কম আঁচে রান্না করলে তৈরি হয়ে যাবে সুস্বাদু এঁচোড়ের কালিয়া।

Related Articles

Back to top button