বিনোদনসেরা খবর

‘টাকা দিয়ে ছবি হিট করাবো, যা করার করে নাও’, দর্শকদের হুমকি দিলেন শাহরুখ খান!

‘শাহরুখ খান’, শুধু একটা নাম নয়, লাখো মানুষের ইমোশন। মন্নতের সামনে রোজ হাজারো লোকের ভিড় জমে থাকে শুধু তার একটা ঝলক দেখার জন্য। এতো বড়ো ফ্যানবেস খুব কম তারকারই আছে। দীর্ঘ ৪ টা বছর পর্দার আড়ালে থাকলেই অনুরাগীদের আনুগ‍ত‍্য এতটুকু কমেনি তার ওপর থেকে। শুধু তাই নয়, ছেলে আরিয়ানের মাদক কেস নিয়ে যখন জেরবার তখনও নিঃশর্ত সাপোর্ট পেয়েছেন ভক্তদের থেকে। তবে এবার যেন সেই তাল কেটেছে।

দীর্ঘ ৪ টা বছর পর্দার সামনে না এলেও মোটেও বসে থাকেননি তিনি। ২০২৩ শে ছবির লাইন লাগিয়ে দিয়েছেন শাহরুখ, ‘পাঠান’, ‘জওয়ান’ এবং ‘ডানকি’ এই তিনটি ছবির প্রচার জোরেশোরে শুরু করেছেন। কিন্তু এতোকিছুর পরেও কোথাও যেন হাওয়া ঠিক নেই। সাম্প্রতিক বয়কট ট্রেন্ডের মুখে পড়েছেন তিনিও। বিগত কয়েকদিন ধরেই টুইটারে ট্রেন্ড করছে ‘হ‍্যাশট‍্যাগ বয়কট পাঠান’। ‘লাল সিং চাড্ডা’র পর মানুষের পরবর্তী টার্গেট এবার ‘পাঠান’।

যদিও এর প্রতুত্তর দিতে শাহরুখ ভক্তরাও টুইটারে পালটা ট্রেন্ড শুরু করেছে ‘India Awaits Pathan’। এই শোরগোলের মধ্যেই শাহরুখের একটি ভাইরাল টুইট যেন ঘি ঢেলেছে এই আগুনে। ইতিমধ্যেই এই টুইট নিয়ে শুরু হয়েছে কাটাছেঁড়া। কিন্তু কী এমন লেখা হয়েছে এই টুইটে, যা নিয়ে এতো আলোড়ন?

ভাইরাল এই টুইটের দেখা যাচ্ছে, শাহরুখ লিখেছেন, ‘যদি আমার ছবি ‘পাঠান সে পাঙ্গা’ বয়কট হয় তাহলে সমস্ত থিয়েটারের সমস্ত আসন কিনে ছবি সুপারহিট করে দেব। যা করতে পারো করে নাও। বলিউডের রাজা আমি। ভাউ এর অ্যাকাউন্ট উড়িয়ে দিয়েছি, এবার কী চাইছো তোমারটাও উড়িয়ে দিই!’

টুইটটি প্রকাশ্যে আসা মাত্রই রোষে ফেটে পড়েছে লোকজন। রশিদ নাদিম নামের এক ব্যক্তি শাহরুখের সেই ট্যুইট শেয়ার করে ক্যাপশনে লেখেন যে, ‘সময় এসে গিয়েছে এদের সবাইকে সম্পূর্ণ ভাবে বয়কট করার। শুধু এদের সিনেমাই নয়, এদের সব ব্র‍্যান্ড আজ থেকে না কেউ কিনবে আর না ব‍্যবহার করবে’।

তবে এই টুইট কি সত্যিই শাহরুখের করা? টুইট ভাইরাল হওয়া মাত্রই ফ্যাক্টচেক করে জানা গেছে যে, এই টুইট শাহরুখের করা নয়। এরকম কোনো মন্তব্য তিনি করেননি। আসলে শাহরুখের নাম নিয়ে কোনো ব্যক্তি এই কাজ করেছেন। এছাড়াও ভাইরাল ওই টুইটে শাহরুখের ইউজার নেমও রয়েছে ‘ফেক এসআরকে’। তবে এই অ্যাকাউন্টটি যারই হোক সেটি একটি ভেরিফায়েড অ্যাকাউন্ট। তবে এসআরকে যে এই টুইট করেননি তা নিশ্চিত।

Related Articles

Back to top button