বিনোদনসেরা খবর

রিয়েলিটি শো জিতেও মেলেনি পুরো টাকা, চ্যানেলের উপর রেগে যান কমেডিয়ান কপিল শর্মা!

ভারতীয় টেলিভিশনের(Indian Television) সবচেয়ে জনপ্রিয় কমেডিয়ান হলেন কপিল শর্মা(Kapil Sharma)। প্রায় এক দশক ধরে তার কমেডি শো দিয়ে তিনি মাতিয়ে রেখেছেন দর্শকদের। তবে এই কমেডিয়ানের জীবনযাত্রা কিন্তু এত সহজ ছিল না। পাঞ্জাবের(Punjab) ছেলের জার্নিটা শুরু হয়েছিল স্ট্যান্ড আপ কমেডি শো ‘দ্যা গ্রেট ইন্ডিয়ান লাফটার চ্যালেঞ্জ'(The Great Indian Laughter Challenge) দিয়ে। আর সেখানে তিনি জয়ী হয়েছিলেন। দেখতে দেখতে দীর্ঘ পথ অতিক্রম করে ফেলেছেন।

কপিল শর্মার গুণের কদর করেন অনুগামী থেকে সমালোচক সকলেই। তার ফ্যান ফলোইং সংখ্যা নেহাত কম নয়। আর এবার দ্য কপিল শর্মা শো এর সাথেই তিনি তার জীবনের নতুন ইনিংস শুরু করেছেন। নেটফ্লিক্সের স্ট্যান্ড-আপ স্পেশ্যাল শো ‘আই অ্যাম নট ডান ইয়েট শুরু করেছেন কপিল শর্মা। আর সেখানেই তিনি তার ক্যারিয়ারের শুরুর দিকের অজানা কথা সম্পর্কে জানিয়েছেন। কপিল জানিয়েছেন, সেই সময় স্টার ওয়ানে সম্প্রচারিত হত দ্যা গ্রেট ইন্ডিয়ান লাফটার চ্যালেঞ্জ। আর সেখানে তিনি পুরস্কার মূল্য হিসেবে ১০ লক্ষ টাকা জিতে ছিলেন।

কিন্তু স্টার চ্যানেল কর্তৃপক্ষ তার পুরস্কার মূল্য থেকে ৩ লক্ষ ১০ হাজার টাকা টিডিএস কেটেছিলেন। আর এতেই চ্যানেলের ওপর চটেছেন কপিল শর্মা। অনুষ্ঠানের তৃতীয় সিরিজ জেতার পর ১০ লক্ষ টাকা পুরষ্কার মূল্যর থেকে কাটছাঁটের পর ৬ লক্ষের একটু বেশি টাকা তার ব্যাংক একাউন্টে ঢুকে ছিল। কপিল এই এদিন জানিয়েছেন যে আমি লাফটার চ্যালেঞ্জ জিতলাম। সেটা ছিল প্রথমবার আমার জীবনের কোনও খাস মুহূর্ত। আমি ১০ লাখ টাকা জিতেছি। এই টাকাটা… নিয়ে নিজেদের আন্ডারএস্টিমেট করি, সেইসময় আমি ভেবেছিলাম এর চেয়ে বেশি কিছু আমি কোনওদিন জিততে পারব না। আর তাই আমি এই চেকটা ল্যামিনেট করে আমার অমৃতসরের বাড়িতে ঝুলিয়ে রেখেছি, ১০ লক্ষ টাকা।

কমেডিয়ান আরো বলেছেন যে এই টাকাটা নেওয়ার জন্য যখন তিনি ব্যাংকে গিয়েছিলেন। তখন ব্যাঙ্কে গিয়ে জানতে পারেন তার খাতায় ওই টাকা থেকে ৬ লক্ষ ৯০ হাজার টাকা জমা পড়েছে, ৩ লক্ষ ১০ হাজার টাকা ওরা কেটে নিয়েছে। তিনি এরপর ব্যাংকে জিজ্ঞাসা করেছিলেন তার বাকি টাকা কই? ওরা বলেছিল ওটা টিডিএস হিসাবে কাটা হয়েছে। সঙ্গে সঙ্গে তিনি পালটা প্রশ্ন করেন, কী করে কাটলেন তার টাকাটা, কে অনুমুতি দিল? ওঁনারা সটান বললেন কেউ বলেনি ওটা আপনাআপনি কেটে যায়, এটাই তো নিয়ম.. সেদিনের ওই কথার পর তিনি অবাক হয়ে গিয়েছিলেন।

Related Articles

Back to top button