বিনোদনসেরা খবর

একাধিক বলিউড ছবিকে রিজেক্ট! এই কারণের জন্যই ‘লাল সিং চাড্ডা’তে অভিনয়ে রাজি হন নাগা চৈতন্য

নাগা চৈতন্য টলিউডের অন্যতম সফল এবং ধনী অভিনেতা। কেরিয়ারের দীর্ঘ এক দশকে বহুবার বলিউডে আমন্ত্রণ পেলেও বারংবার প্রত্যাখান করে এসেছেন তিনি। তবে অবশেষে এক দশক পর সাড়া দিয়েছেন অভিনেতা। আমির খান অভিনীত লাল সিং চাড্ডার হাত ধরে বলিউডে আত্মপ্রকাশ করতে প্রস্তুত তিনি।

প্রসঙ্গত, এর আগে নাগা চৈতন্য নিজেই জানিয়েছিলেন যে, তাকে আগেই হিন্দি সিনেমার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল কিন্তু তিনি প্রত্যাখ্যান করেছিলেন। নিজের বলিউড অভিষেকের কথা বলতে গিয়ে, অভিনেতা জানিয়েছেন যে, তিনি কিছু সময়ের জন্য ইচ্ছে করেই হিন্দি ছবি প্রত্যাখ্যান করছেন।

নাগা চৈতন্যের কথায়, “আমি চেন্নাইয়ে বড় হয়েছি এবং পরবর্তীকালে হায়দ্রাবাদে বসবাস করেছি। তাই আমার হিন্দি উচ্চারণ খুব একটা ভালো নয়। নিজের হিন্দি উচ্চারণ নিয়ে দীর্ঘদিন ইনসিকিউরিটিতে ছিলাম। সত্যি বলতে আমি যখনই কাউকে জিজ্ঞেস করতাম যে, আমার হিন্দি উচ্চারণে কি দক্ষিণ ভারতীয় টান আছে তখন মানুষ উত্তর দিতে দুবার ভাবতো”।

তবে লাল সিং চাড্ডাকে কেন তিনি হ্যাঁ বললেন? এই প্রশ্নের উত্তরে অভিনেতা জানান, “যখন আমি লাল সিং চাড্ডার জন্য অফার পেয়েছিলাম, আমি তাদের আমার সমস্যার কথা জানিয়েছিলাম। এবং আশ্চর্য্যজনকভাবে আমির খান তাতে সম্পূর্ণ স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করেছিলেন কারণ আমাকে একজন দক্ষিণ ভারতীয় ছেলে হিসেবে কাস্ট করা হচ্ছে যে উত্তর ভারতে গিয়ে নিজের সফর শুরু করবে।”

এর সাথে তিনি আরও সংযোজন করেন যে, “নির্মাতারা চেয়েছিলেন যে, আমি যেভাবে কথা বলি তাতে যেন আমি দক্ষিণ ভারতীয় সেটা বোঝা যায়। তাদের বক্তব্য অনুযায়ী, আমি ফিল্মে হিন্দি বলতে পারি কিন্তু আমি যদি তেলেগু শব্দে বলে ফেলি বা তেলেগু টান আসে তাহলেও ঠিক আছে। আসলে, তেলেগু স্বাদ আনার জন্য আমরা ছবিতে কয়েকটি তেলেগু শব্দ যুক্ত করেছি।”

প্রসঙ্গত, ফিল্মটি হলিউডের ক্লাসিক ফরেস্ট গাম্পের অফিসিয়াল রিমেক। ছবিতে মূখ্য ভূমিকায় অভিনয় করেছেন আমির খান এবং করিনা কাপুর খান। ছবিতে সেনা অফিসার বলরাজুর ভূমিকায় দেখা যাবে নাগা চৈতন্যকে। এছাড়াও লাল সিং চাড্ডার তেলেগু সংস্করণটি উপস্থাপন করবেন চিরঞ্জীবী।

Related Articles

Back to top button