বিনোদনসেরা খবর

আগামী ২২ সেপ্টেম্বর থেকে বন্ধ হবে এই ব্যাঙ্ক, টাকা তোলা থেকে লেনদেন কোনোকিছুই করতে পারবেন না গ্রাহকরা!

ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্ক (আরবিআই) ভারতের কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্ক। সরকারের উন্নয়ন নীতির ক্ষেত্রে বিশেষ ভূমিকা পালন করে ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্ক। আর সম্প্রতি একটি বড়ো সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে এই কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্কটি। সূত্রের খবর, এবার এক বিশেষ কারণবশত বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে একটি ব্যাঙ্ক। ইতিমধ্যেই নাকি ঐ ব্যাঙ্ক বন্ধ করারও নির্দেশও দিয়ে দিয়েছে সংস্থাটি। চলুন জেনে নিই পুরো বিষয়টি।

২২ সেপ্টেম্বর থেকে বন্ধ হবে ব্যাঙ্কটি : প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এযাবৎ RBI কর্তৃক একাধিক ব্যাঙ্ক এবং আর্থিক প্রতিষ্ঠানের লাইসেন্স বাতিল করা হয়েছে। আর সেই ধারাবাহিকতা বজায় রেখেই আরো একটি ব্যাঙ্ক বন্ধ হবে আগামী ২২ সেপ্টেম্বর থেকে। অর্থাৎ পূজোর আগেই সংশ্লিষ্ট ব্যাঙ্কের গ্রাহকদের লাগবে বড়ো ঝটকা।

এই ব্যাঙ্কের লাইসেন্স বাতিল করেছে RB : সূত্রের খবর, গত অগাস্ট মাসেই পুণের রুপি কো-অপারেটিভ ব্যাঙ্ক লিমিটেডের (Rupee Co-operative Bank Limited) লাইসেন্স বাতিল করার নির্দেশ দিয়েছিলো আরবিআই। খুব স্বাভাবিকভাবেই ব্যাঙ্কের গ্রাহকদের কাছে এটি একটি বড়ো ঝটকা। সবে মিলিয়ে আগামী ২২ সেপ্টেম্বর থেকেই পুরোপুরি বন্ধ হচ্ছে ব্যাঙ্কের কাজ।

কেন লাইসেন্স বাতিল করা হল : সূত্রের খবর, রুপি কো-অপারেটিভ ব্যাঙ্ক লিমিটেডের কাছে পর্যাপ্ত মূলধন এবং উপার্জনের আর কোনোরকম সম্ভাবনা নেই। আর এই বিষয়টিকে চিন্তা করেই ওই ব্যাঙ্কের লাইসেন্স বাতিল করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে আরবিআই। প্রসঙ্গত জানিয়ে রাখি, সংশ্লিষ্ট ব্যাঙ্কের গ্রাহকরা ২২ সেপ্টেম্বরের পর থেকে তাদের কোনো টাকা জমা বা তুলতে পারবেন না। এমনকি গ্রাহকেরা কোনো ধরণের আর্থিক লেনদেনও করতে পারবেন না এরপর থেকে।

পাওয়া যাবে ৫ লক্ষ টাকা : আরবিআই সূত্রে পাওয়া খবর অনুযায়ী, ব্যাঙ্কিং রেগুলেশন অ্যাক্ট, ১৯৪৯-এর ধারা ১১(১) এবং ধারা ২২(৩)(ডি)-এর পাশাপাশি ব্যাঙ্কিং রেগুলেশন অ্যাক্ট, ১৯৪৯-এর ধারা ৫৬-এর বিধানগুলি মেনে চলে না। এছাড়াও, ব্যাঙ্ক ধারা ২২(৩)(এ), ২২(৩)(বি), ২২(৩)(সি), ২২(৩)(ডি) এবং ২২(৩)(ই) মেনে চলতে ব্যর্থ হয়েছে৷ এমতাবস্থায়, ডিআইসিজিসি আইন, ১৯৬১-এর বিধান সাপেক্ষে, আমানতকারীরা প্রত্যেকে ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত সঞ্চিত বীমা দাবি করতে পারবেন।

Related Articles

Back to top button