Work From Home Online job to earn upto Rs 2500 per hour

Partha

Work From Home: বাড়ি বসেই ঘন্টায় ২৫০০ টাকা! ভারত সরকারের এই ওয়ার্ক ফর্ম হোম সম্পর্কে জানেন?

নিউজশর্ট ডেস্কঃ বর্তমান সময়ে দাঁড়িয়ে একটা ভালো কাজের খোঁজ পাওয়া বড় দুষ্কর হয়ে দাঁড়িয়েছে। সেখানে যদি বাড়ি বসেই ভারত সরকার অনুমোদিত কোনো কাজ করে ঘন্টায় ২০০০-২৫০০ টাকা আয় করা যায় তাহলে কেমন হয়? ভাবছেন এও সম্ভব? হ্যাঁ আজ এমনই একটি বাড়ি বসে করার মত কাজের খোঁজ (Work From Home Job) নিয়ে হাজির হয়েছি। কিভাবে আবেদন করবেন, কি কাজ করতে হবে? সবটা জানার জন্য এই প্রতিবেদনটি সম্পূর্ণ পড়ুন।

   

আসলে করোনা মহামারীর পর থেকেই প্রযুক্তির ব্যবহার করে ওয়ার্ক ফ্রম হোমের (Work from Home) চাহিদা অনেকটাই বেড়েছে। বাড়িতে বসেই পৃথিবীর যে কোনো কোম্পানির জন্য কাজ করা সম্ভব ইন্টারনেটের মাধ্যমে। এমনই কিছু ওয়ার্ক ফ্রম হোম করে আপনি ঘন্টায় মোটা টাকা আয় করতেই পারেন। চলুন এবার কাজটির সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক।

অনলাইনে Work From Home

কর্মরত হোক বা কলেজ পড়ুয়া এক্সট্রা কিছু ইনকামের জন্য পার্টটাইম কাজ সকলেই খুঁজে থাকেন। এমনকি গৃহবধূরাও আজকাল ফাঁকা বসে না থেকে বিভিন্ন কাজ করছেন। আজ যে কাজ সম্পর্কে আপনাদের জানাবো সেটা যে কেউই বাড়িতে দু এক ঘন্টার মধ্যে করতে পারবেন।

Indian Teenage Boy work from home

আরও পড়ুনঃ ৩০ তারিখই লাস্ট, এক্ষুনি এই কাজ না করলে বন্ধ ফ্রি রেশন! জারি হল বিজ্ঞপ্তি

কিভাবে কাজের জন্য নাম নথিভুক্ত করবেন?

যেহেতু এটি একটি অনলাইন কাজ তাই আপনাকে প্রথমে ‘Flexibench’ নামক কোম্পানির ওয়েবসাইটে যেতে হবে। এটি একটি ভারত সরকারের অ্যাপ্রুভড কোম্পানি। এর অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে গিয়ে প্রথমেই আপনাকে নিজের নাম, ইমেল আইডি ও পাসওয়ার্ড দিয়ে অ্যাকাউন্ট বানিয়ে নিতে হবে। তাহলেই আপনার প্রোফাইল তৈরী হয়ে যাবে।

Flexibench এ কি কাজ করা হয়?

প্রোফাইল তৈরী করে নেওয়ার পর এই প্ল্যাটফর্মে বিভিন্ন রকমের কাজ থাকবে তার মধ্যে থেকে যে কোনোটি পছন্দ মত বেছে নেওয়া যেতে পারে। তবে আজ জেতার বসিয়ে বলবো সেটা হল অনুবাদক বা Translator এর কাজ। অর্থাৎ আপনি যদি যে ভাষায় দক্ষ সেই ভাষায় অনুবাদ করবেন। উদাহরণ স্বরূপ আপনি যদি বাঙালি হন ও ইংরেজি পড়তে জানেন তাহলে আপনাকে ইংরেজি থেকে বাংলা অনুবাদ করে দিতে হবে।

আবেদনের ফিস ও বাছাই পদ্ধতি কি?

কাজ পাওয়ার আগে আপনাকে নিজেকে যোগ্য প্রমাণ করতে হবে। তার জন্য প্রথমে আপনাকে একটি পরীক্ষা নেওয়া হবে যে আপনি অনুবাদের কাজ করতে পারছেন কি না! সেই পরীক্ষায় পাশ করলে তবেই আপনি পরবর্তীকালে কাজ পাবেন।

এই কাজের জন্য কোনো আবেদনের ফিস লাগবে না রেজিস্ট্রেশনের পর কোনো চার্জ ছাড়াই অনুবাদকের কাজ করে উপার্জন করা যাবে। আর যেহেতু এই কাজটি অনলাইন বা ইন্টারনেটের মাধ্যমে হবে তাই আপনি যেখান থেকে খুশি কাজটি করতে পারবেন।