অন্যান্যভিডিওসেরা খবর

হাতির দলের সামনে গাড়ি থামিয়ে সেলফি! অল্পের জন্য বাঁচল প্রাণ, ভাইরাল ভিডিও দেখে ক্ষুব্ধ নেটজনতা

সেলফিতে অনীহা এমন মানুষ আজকের দিনে খুঁজে পাওয়া অসম্ভব। একটা স্মার্টফোন কেনার সময় মানুষ আগে দেখে তার সেলফি ক্যামেরা কতটা ভালো। আজকের ফেসবুক, ইনস্টাগ্রামের দিনে সেলফি তোলাটা একটা ট্রেন্ড হয়ে দাঁড়িয়েছে।

আর যারা এই ট্রেন্ড থেকে গা বাঁচিয়ে চলেন তাদের বলে দেওয়া হয় ‘ব্যাক ডেটেড’। দিনদিন যেমন বেড়েছে সেলফি অর্থাৎ নিজস্বীর রমরমা তেমনই পাল্লা দিয়ে বেড়েছে দূর্ঘটনার সংখ্যাও। নিজেকে কুল দেখানোর নেশায় বিপজ্জনক ঝুঁকি নিতেও দুবার ভাবছেনা আজকের প্রজন্ম।

সম্প্রতি এমনই আরেক নিদর্শন দেখতে পাওয়া গেলো সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেলফির নেশায় মৃত্যুকে হাতে নিয়ে খেলতে দেখা গেলো একদল যুবককে। আসেপাশের পরিস্থিতি কতটা গম্ভীর তা না ভেবেই সেলফি তোলাতে মত্ত তারা।

 

ভাইরাল এই ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে, একদল হাতি পেরিয়ে যাচ্ছে রাস্তা দিয়ে। আর সেই হাতিদের সামনে বেশ কিছু মানুষ সেলফি তুলতে মত্ত। সেলফির নেশা এমনই ভয়ানক নেশা যে মাঝপথে গাড়ি থামিয়েই উঠছে ছবি। দুজন তো আবার হাতির দলের একেবারেই সামনে।

লোকজনের ভিড় দেখে হাতির দল এতোটাই বিরক্ত হয় যে, রীতিমত তাড়া করতে শুরু করে তাদের। তখন অবশেষে ভয়ে পড়িমরি করে দৌড় দেন সেলফি ম্যানিয়াকরা। আইএএস অফিসার সুপ্রিয়া সাহু এই ভিডিওটি নিজের টুইটার হ্যান্ডেল থেকে শেয়ার করেছেন।

ভিডিওটির সাথে ক্যাপশনে তিনি লিখেছেন, “বন্যদের সঙ্গে সেলফি তোলার এই নেশা ভয়ঙ্কর হতে পারে। এই লোকগুলো খুবই ভাগ্যবাণ যে, ওদের এই বিরক্তিকর ব্যবহার দেখার পরেও হাতিরা ক্ষমা করে দিয়েছে। অন্যথায় মানুষকে শিক্ষা দিতে খুব একটা বেশি সময় নেয় না হাতিরা।” ইতিমধ্যেই প্রায় ৭৫ হাজারের বেশিবার দেখা হয়েছে ভিডিওটি। বেশিরভাগ নেটিজনরাই বিষয়টি দেখে ক্ষোভে ফুঁসছেন।

Related Articles

Back to top button