LIC

Partha

LIC Scheme: একবার টাকা লাগালেই পাবেন ২৬,০০০ টাকার পেনশন! LIC-র এই স্কিম সম্পর্কে জানেন তো?

নিউজশর্ট ডেস্কঃ সাধারণ মানুষের বিনিয়োগের (Investment) ক্ষেত্রে ব্যাংক এবং পোস্ট অফিসের পর এলআইসির (LIC) ওপর আস্থা অনেক বেশি। অনেকেই অবসর গ্রহণের পর যাতে মোটা টাকা রিটার্ন পাওয়া যায়। সেই জন্য এলআইসি বিভিন্ন স্কিমে অর্থ বিনিয়োগ করে থাকেন। এক্ষেত্রে আপনিও যদি এরকম কোনো স্কিম খুঁজে থাকেন, তাহলে এলআইসির জীবন শান্তি স্কিম আপনার জন্য এমন একটি ভাল বিকল্প হতে পারে।

   

চলুন তাহলে এই প্ল্যান সম্পর্কে বিস্তারিত আপনাদেরকে জানানো যাক। এই প্ল্যানে আপনি জীবন বীমার সুবিধা পাবেন। আপনার ভবিষ্যৎকে সুরক্ষিত রাখার জন্য এই প্ল্যান একেবারেই উপযুক্ত। এই স্কিমে কোন সর্বোচ্চ সীমা নেই। তবে মনে রাখবেন এই স্কিমে সর্বনিম্ন বিনিয়োগের পরিমাণ হলো ১.৫ লাখ টাকা।

জীবন শান্তি স্কিম: এটি একটি সিঙ্গেল প্রিমিয়াম স্কিম। এখানে একবারে টাকা পরিশোধ করে এই স্কিমের সুবিধা পেতে পারেন। এর বিনিময়ে এলআইসি আপনাকে সারাজীবন একটি নির্দিষ্ট ব্যবধানে নিয়মিত অর্থ প্রদান করতে থাকবে। এখানে আপনি মাসিক, ত্রৈমাসিক, অর্ধবার্ষিক বা বার্ষিক কিস্তিতে অর্থ গ্রহণ করতে পারেন।

LIC Policy

আরও পড়ুন: Aadhaar Card: শুধু আধার কার্ড নয়, এই বিশেষ কার্ড আনছে কেন্দ্রীয় সরকার! মিলবে একাধিক সুবিধা

এখানে বার্ষিক অর্থ প্রদানের ক্ষেত্রে আপনি দ্রুত অর্থ পেতে শুরু করবেন। আর আপনি যদি সিঙ্গেল পেমেন্ট প্রদানের মাধ্যমে এই প্ল্যানটি কিনে থাকেন। তাহলে নির্বাচিত অর্থপ্রদানের মেয়াদ অনুযায়ী সব অর্থ পাবেন। এই স্কিম সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্যের জন্য এলআইসির অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে যেতে পারেন অথবা এলআইসি যে কোন শাখায় গিয়ে যোগাযোগ করতে পারেন।

কি কি নিয়ম আছে? এই স্কিমে আপনি ৫, ১০, ১৫ বা ২০ বছর পরে পেনশন শুরু করতে পারেন। এই পলিসি গ্রহণকারীকে তার বয়স কমপক্ষে ৩০ বছর হতে হবে। আর এই প্রকল্পের জন্য কমপক্ষে ১.৫ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করা প্রয়োজন থাকবে।

LIC

কিভাবে পেনশন পাবেন? ধরুন, যদি কোন ব্যক্তি ১৫ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করেন এবং ২০ বছরের জন্য এই বিনিয়োগ করে থাকেন। তাহলে প্রত্যেক মাসে ওই ব্যক্তি ২৬ হাজার টাকা পর্যন্ত পেনশন পেতে পারেন। আর আপনি যদি মাসের বদলে বছরে নিতে চান তাহলে বছরে প্রায় ৩.১২ লক্ষ টাকা মিলবে।  বিনিয়োগকারীর মৃত্যু হলে তার পরিবার ও নমিনি অন্যান্য সুবিধাসহ পেনশন পেয়ে যাবে।